eibela24.com
মঙ্গলবার, ১৬, আগস্ট, ২০২২
 

 
সঙ্গীতের রাজপুত্র শচীন দেববর্মণ
আপডেট: ১০:২৬ pm ০২-১০-২০২০
 
 


‘নিটোল পায়ে রিনিক ঝিনিক পায়েলখানি বাজে’ গানটি ফুয়াদ ফিচারিং শুভ নয়, ‘ঘাটে লাগাইয়া ডিঙ্গা’ গানটিও আনুশেহর নয়। এগুলো ওস্তাদের গান। রাজার গান। রাজা মানে রাজা। ত্রিপুরার চন্দ্রবংশীয় মানিক্য রাজপরিবারের সন্তান তিনি। তৎকালীন ত্রিপুরার অন্তর্গত কুমিল্লার রাজপরিবারের নয় সন্তানের মধ্যে তিনি ছিলেন অন্যতম। বাবা নবদ্বীপচন্দ্র দেববর্মণ। মা মণিপুরি রাজবংশের মেয়ে নিরুপমা দেবী। রাজপুত্রের নাম শচীন দেববর্মণ।

উপমহাদেশের অন্যতম শ্রেষ্ঠ সুরকার। যিনি কাজী নজরুল ইসলামের বহুল জনপ্রিয় অনেক গানের সুরকার। যেমন পদ্মার ঢেউ রে। এছাড়াও অন্য গীতিকারদের গান যেমন  তাকদুম তাকদুম বাজে বাংলদেশের ঢোল, শোনো গো দখিন হাওয়া প্রেম করেছি আমি, কে যাস রে ভাটি গাং বাইয়া, নিশিথে যাইও ফুলবনে, তুমি এসেছিলে পরশু, বিরহ বড় ভালো লাগে, বর্ণে গন্ধে ছন্দে গীতিতে ইত্যাদি গানের সুরকার শচীন কর্তাই।  

হ্যায় আপনা দিল তো আওয়ারা, যায়ে তো যায়ে কাহা সমঝেগা কওন ইয়াহা, এক লাড়কি ভিগিভাগিসি, হাল ক্যায়সা হ্যায় জনাবকা, বাবু সমঝো ইশারে,   ছোড় দো আঁচল, চান্দ ফির নিকলা,  জীবনকে সফরমে রাহে মিলতে হ্যায় বিছাড়যানেকো এবং লতা মুঙ্গেশকর ও কিশোর কুমারের অসংখ্য সুপারহিট গান এসেছে শচীন দেব বর্মণের কাছ থেকেই। 

নি এম/