রবিবার, ১৬ জুন ২০১৯
রবিবার, ২রা আষাঢ় ১৪২৬
 
 
ভাইফোঁটায় কী দেবেন ভাইকে?
প্রকাশ: ০২:০১ pm ৩১-১০-২০১৬ হালনাগাদ: ০২:০১ pm ৩১-১০-২০১৬
 
 
 


এসে গেল ভাইফোঁটা। ভাই বা দাদার মঙ্গল কামনা করার দিন। তার সঙ্গে আছে এক সঙ্গে দিনটা কাটানো, জমিয়ে খাওয়া দাওয়া আর উপহার পাওয়া। ভাইকে এ বছর ভাইফোঁটাতে কী দেবেন ভেবেছেন? চলুন দেখি কিছু উপহারের নমুনা।

স্পোর্টি ভাই: আপনার ভাই যদি খেলাপ্রেমী হয় তাহলে কিনতে পারেন তার প্রিয় ফুটবল ক্লাব বা দেশের জার্সি। প্রিয় খেলোয়াড়ের জার্সি দিতে পারেন উপহারে। আপনার ভাই যদি নিজে খেলাধুলো করেন তাহলে তার জন্য রয়েছে নানা ধরনের স্পোর্টিং সামগ্রী। যেমন সিপার বটল, রিস্টব্যান্ড, কিট ব্যাগ ইত্যাদি। নিজের বাজেট অনুযায়ী ব্র্যান্ডেড অথবা স্থানীয় দোকান থেকেই কিনে নিন। এ ছাড়াও দিতে পারেন ভাইয়ের পছন্দের খেলোয়াড়ের পোস্টার বা আত্মজীবনী। যদি আপনার বাজেট অনুমতি দেয় তাহলে কিনে দিতে পারেন স্পোর্টি ঘড়ি। যাতে স্টপওয়াচ রয়েছে।

সঙ্গীতপ্রেমী ভাই: আপনার ভাই কি সঙ্গীত অনুরাগী? তাহলে এই ভাইফোঁটায় দিতে পারেন তার পছন্দের গানের কালেকশন। অথবা দিতে পারেন ওয়্যারলেস ব্লুটুথ স্পিকার। যে কোনও ইলেকট্রনিকসের দোকানে গেলে আপনি পেয়ে যাবেন এই ধরনের স্পিকার। দাম নির্ভর করবে ব্র্যান্ড অনুযায়ী। নিজের বাজেট অনুযায়ী যেটা পছন্দ সেটা কিনে উপহার দিয়ে দিন প্রিয় ভাইকে। এ ছাড়াও দিতে পারেন হেডফোন। বাজেট অনুমতি দিলে বোস অথবা স্কাল ক্যান্ডির মতো নামী ব্র্যান্ডের ওয়্যারলেস হেডফোন কিনতে পারেন। যদি বাজেট একটু কম হয় তাহলে মিউজিক সম্পর্কিত কোনও শো-পিস দিতে পারেন, বা নন-ব্র্যান্ডেড হেডফোন। এগুলো আপনি পেয়ে যাবেন স্টারমার্কের মতো রিটেল আউটলেটগুলোতে। 

Gift Ideas For Bhai Phonta-Ananda Utsav

খাদ্যরসিক ভাই: ছোট ভাই খেতে খুব ভালবাসে? রোজই শহরে নতুন নতুন রেস্তোরাঁ খুলছে। ভাইফোঁটার দিন আপনার ভোজনরসিক ভাইকে নিয়ে চলে যেতে পারেন এরই মধ্যে কোনও একটাতে। চেখে দেখতে পারেন নতুন কোনও কুইজিন। এটাই হতে পারে ভাইফোঁটার উপহার। বাজেট কি অনুমতি দিচ্ছে না রেস্তোরাঁয় গিয়ে খেতে? তাহলে চিন্তা করবেন না। ইউটিউব বা ইন্টারনেট থেকে কোনও ভাল রেসিপি বেছে নিয়ে নিজের হাতে ভাইয়ের জন্য ভাইফোঁটার ভোজ রাঁধুন। স্পেশাল কোনও কুইজিন পছন্দ হলে চেষ্টা করুন তার থেকেই কিছু আইটেম বানাতে। এ ছাড়াও নানা ধরনের ফুড হ্যাম্পার বানিয়েও ভাইকে উপহার দিতে পারেন। হ্যাম্পারে রাখুন বাজেট অনুযায়ী বিদেশি বা দেশি চকোলেট, কাপকেক, কুকিজ, নোনতা স্ন্যাকস ইত্যাদি। ভাইয়ের পছন্দ আনুযায়ী বাস্কেট ভরে সুস্বাদু উপহার দিন।

বইপোকা ভাই: ভাইয়ের পছন্দের লেখকের নতুন কোনও বই বেরিয়ে থাকলে সেটা উপহার হিসেবে দিতে পারেন। ভাই যদি কোনও বিশেষ সিরিজ নিয়মিত পড়েন তাই পুরো সেট আপনি উপহার দিতে পারেন যদি না আগে থেকেই তা ভাইয়ের কাছে থাকে। আপনার ভাই যে ধরনের বই পছন্দ করেন সে ধরনের কোনও বই উপহার দিন। কমিকস অথবা গ্রাফিক্স নভেলে ভাইয়ের রুচি থাকলে উপহার দিতে পারেন পছন্দের অ্যাকশন ফিগার অথবা কমিক বইয়ের সেট। ছোটবেলা মনে করিয়ে দিতে উপহার দেওয়া যেতে পারে টিনটিন, বাঁটুল দি গ্রেট, হাঁদা ভোঁদা, নন্টে ফন্টে-র কমিকসের বই। রাত জেগে বই পড়ার অভ্যাস থাকলে উপহার দিতে পারেন বেডসাইড ল্যাম্প, অথবা ক্লিপ অন ল্যাম্প যা বইয়ের সঙ্গে আটকে অনায়াসে রাতে পড়া যেতে পারে। এই ধরনের ক্লিপ অন লাইট অনলাইন শপিং পোর্টালগুলোতে পেয়ে যেতে পারেন। বাজেট বেশি থাকলে দিতে পারেন অ্যামাজন কিন্ডল ইবুক রিডার।

ফ্যাশন কনশাস ভাই: আপনার ভাই কি হাল ফ্যাশনের নাড়ি নক্ষত্র চেনেন? সব সময় কি তিনি একদম টিপ টপ থাকতে পছন্দ করেন? উপহার দিন হাল ফ্যাশনের শার্ট বা টি-শার্ট। দিতে পারেন রং বেরঙের শর্টসও। মল থেকে ব্র্যান্ডেড কেনার বাজেট না থাকলে নিউ মার্কেট বা গড়িয়াহাট থেকে দরদাম করে করে কিনে নিন। দিতে পারেন হাল ফ্যাশনের জুতো, ওয়ালেট, সানগ্লাস, ঘড়ি। যদি আপনার ভাই নিয়মিত রূপচর্চা করেন তাহলে ফেসওয়াশ, ডিও, সাবান দিয়ে গিফট হ্যাম্পার তৈরি করে দিতে পারেন। দেওয়া যেতে পারে ভাল রেজর, শেভিং জেল বা শেভিং ফোমের গিফট প্যাক। 

Gift Ideas For Bhai Phonta-Ananda Utsav

স্বাস্থ্য সচেতন ভাই: আপনার ভাই কি খুব হেলথ কনশাস? নিয়মিত শরীরচর্চা করেন? তাহলে তার জন্য কিনকে পারেন পেডোমিটার। যে কোনও অনলাই পোর্টালের হেলথ বিভাগে পেয়ে যাবেন নানা ধরনের এবং নানা দামের পেডোমিটার। এ ছাড়াও দিতে পারেন এমপিথ্রি বা এমপিফোর প্লেয়ার। জগিং বা দৌড়নোর সময় পছন্দ মতো গান শুনতে পারবেন আপনার ভাই। এই ধরনের এমপিথ্রি বা এমপিফোর প্লেয়ার আপনি পেয়ে যাবেন যে কোনও ইলেকট্রনিকসের দোকানে। স্বাস্থ্যকর এবং অরগ্যানিক খাবারের হ্যাম্পারও গিফট করতে পারেন। তাতে রাখতে পারেন ফ্লাক্সসিড, কিনোয়া, প্রোবায়োটিক দই, ডাবের জল।

কলেজ পড়ুয়া ভাই: ছোট ভাই কি সবে কলেজে উঠেছে? এ বছর ভাইফোঁটায় তাহলে তাকে দিতে পারেন হাল ফ্যাশনের জামা-কাপড়। অথবা দিতে পারেন ট্রেন্ডি ব্যাকপ্যাক, সঙ্গে থাকতে পারে খাতা ও কলম। আপনার ভাইয়ের কাজে লাগবে। উপহার দিতে পারেন রিস্টওয়াচ বা অ্যালার্ম দেওয়া টেবল ক্লক। যাতে কলেজের ক্লাস মিস না হয়ে যায়।

হাতে আর তিন দিন সময়। এখনই প্ল্যান করে কিনে ফেলুন আপনার প্রিয় ভাইয়ের উপহার।

 

এইবেলাডটকম/নীল

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

সম্পাদক : সুকৃতি কুমার মন্ডল 

 খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

+8801711-98 15 52

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2019 Eibela.Com
Developed by: coder71