বৃহস্পতিবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮
বৃহঃস্পতিবার, ৫ই আশ্বিন ১৪২৫
 
 
টেকনাফে নিখোঁজ মাদ্রাসা ছাত্রের মৃতদেহ উদ্ধার
প্রকাশ: ০২:৫৬ pm ১৪-০৮-২০১৮ হালনাগাদ: ০২:৫৬ pm ১৪-০৮-২০১৮
 
কক্সবাজার প্রতিনিধি
 
 
 
 


টেকনাফে বন্ধুদের সাথে শখ করে সাগরে গোসল করতে গিয়েই নিখোঁজ থাকার ২৪ ঘন্টা পর এক মাদ্রাসা ছাত্রের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। 

জানা যায়, ১৩ আগষ্ট দুপুর আড়াই টারদিকে টেকনাফের উপকূলীয় বাহারছড়ার শামলাপুর উত্তর ঘাট বীচ পয়েন্ট হতে নিখোঁজ থাকা হ্নীলা ইউনিয়নের পশ্চিম পানখালীর বাদশা মিয়ার পুত্র এবং জমিরিয়া দারুল কোরআন সিনিয়র মাদ্রাসার নবম শ্রেণীর ছাত্র (রোল নং-১৫) ইয়ার মোহাম্মদ (১৬) ‘র ভাসমান মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। ৬ ভাই ও ১ বোনের মধ্যে নিহত ইয়ার মোহাম্মদ সবার ছোট। 

বাহারছড়া তদন্ত কেন্দ্রের তদন্ত কর্মকর্তা সাগর হতে ভাসমান অবস্থায় মাদ্রাসা ছাত্রের মৃতদেহ উদ্ধারের বিষয়টি নিশ্চিত করেন। বাদে এশা পানখালী মাঝের পাড়া জামে মসজিদে জানাজা স্থানীয় গোরস্থানে দাফনের প্রস্তুনি নেওয়া হয়েছে।

তথ্যানুসন্ধানে পারিবারিক সুত্র জানায়, হ্নীলা জমিরিয়া দারুস সুন্নাহ মাদ্রাসার নবম শ্রেণীর ছাত্র ইয়ার মোহাম্মদ, সহপাঠী মোহাম্মদ হোছন  ও প্রতিবেশী মাহমুদ উল্লাহ, আবু বক্কর গত ১২ আগষ্ট সকালে হোয়াইক্যং হয়ে বাহারছড়া শামলাপুর যায়। সেখানে কিছুক্ষণ বিশ্রাম ও নাস্তা করার পর সাগরে গোসল করতে নামেন। কিছুক্ষণ গোসল করার পর হঠাৎ ঢেউয়ের টানে পড়ে যায় তারা। সহপাঠী মোহাম্মদ হোছন কিনারায় থাকায় কোন প্রকারে ভাসমান হয়ে ঢেউয়ের ধাক্কায় কিনারায় চলে আসে। এর অল্প কিছুক্ষণ পর আবু বক্কর ও মাহমুদ উল্লাহ কিনারায় ভেসে আসলে মোহাম্মদ হোছন ও আবু বক্কর মিলে মূমুর্ষ এবং অজ্ঞান অবস্থায় মাহমুদুল্লাহকে উদ্ধার করে। অনেকক্ষণ অপেক্ষা করে ইয়ার মোহাম্মদের খোঁজ না পেয়ে বাড়িতে এসে জানায়। তখন হতে পরিবারের মধ্যে শোক ও কান্নার ঢেউ শুরু হয়। পরদিন ওই এলাকায় খুঁজতে গিয়েই দুপুরে ভাসমান লাশ পাওয়া যায়। 

নি এম/চঞ্চল 

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
Study in RUSSIA
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : নিন্দ্রা ভৌমিক

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

ফোন : +8801517-29 00 02

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

 

 

Copyright © 2018 Eibela.Com
Developed by: coder71