বৃহস্পতিবার, ১৯ জানুয়ারি ২০১৭
বৃহঃস্পতিবার, ৬ই মাঘ ১৪২৩
সর্বশেষ
 
 
বাড়ছে দুর্ঘটনা
বগুড়ায় মহাসড়কে হেলপার ও কিশোর চালক দিয়ে গাড়ী চালানো হচ্ছে
প্রকাশ: ০৪:০৪ pm ১১-০১-২০১৭ হালনাগাদ: ০৪:০৪ pm ১১-০১-২০১৭
 
 
 


বগুড়া প্রতিনিধি : বগুড়া সদর ও আশপাশের এলাকার সড়ক মহাসড়কে সংশ্লিষ্ট বিভাগের নজরদারীর অভাবে যত্রতত্র নিয়ন্ত্রনহীন ভাবে চলছে যানবাহন।

দূর্ভাগ্যজনক হলেও সত্য জেলার বিভিন্নস্থানে বাস ট্রাক চালানো হচ্ছে এক  শ্রেণীর হেলাপার কিংবা কিশোর বয়সের চালক দিয়ে। ফলে প্রতিনিয়তই ঘটছে সড়ক দুর্ঘটনা। ঘটছে প্রানহানী ও পঙ্গুত্বের মত অসংখ্য মানুষ।

এমনি এক ঘটনায় সম্প্রতি বগুড়া নামুজা সড়কের হাজরাদীঘি এলাকায় হেলপার চালিত বাসের চাপায় মারা যায় মিনহাজ (৭)নামের এক শিশু।

আশংকাজনক ভাবে আহত হয়ে হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ছেন নিহতের  সঙ্গে থাকা তার দাদী জুলেখা বেগম।অন্য এক ঘটনায় শহরতলীর বনানীর সূজাবাদ এলাকায় দেখা গেছে মাত্র ১৫ বছরের এক কিশোর চালক মহাসড়কে ৫টনি ট্রাক চালিয়ে মাটি আনা  নেয়ার কাজ করছে।

ওই কিশোরে ট্রাক চালক মিজান(১৫) ঠাকুরগাঁও মহসিনের ছেলে। কিশোর চালক জানায়, সে এ কাজ করছেন বেশ কিছুদিন  হল। কোথায় মাটি ফেলা হচ্ছে ? এমন প্রশ্নের উত্তরে সে একটি সিকিউরিটি গার্ড কোম্পানীর কথা বলে।

খোজ করে জানা গেছে,ওই কিশোর চালক সুজাবাদ এলাকার জনৈক আলহাজ আতিকুর রহমান ওরফে আতিক হাজীর মালিকানাধিন কয়েকটি ৫ টনের একটি(বগুড়া-১১-১৮৭৯) নাম্বারের ট্রাক চালিয়ে বেশ কিছু দিন যাবত মহাড়কে ট্রাক চালিয়ে ধানী জমিতে মাটি ফেরার কাজে নিয়োজিত আছে।

মঙ্গলবার বিকাল ৩টার দিকে সূজাবাদ এলাকার নরিমিক্স ফিলিং ষ্টেশনের পশ্চিম পাশের্^র একটি নির্মানাধিন ওষুধ কোম্পানীর স্থাপনা থেকে কিশোর চালক মিজান ট্রাক নিয়ে মহাসড়কে ওঠার চেষ্টা করছিল। এমতাবস্থায় তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে সেখানে তেরে আসেন নান্নু নামের একজন।

তিনি এ সময় এ প্রতিনিধিকে উল্টো জিজ্ঞাসা করেন, আপনার সমস্যা কি ? তার বক্তব্য একটি নির্মানাধিন ওষুধ কোম্পানীর যায়গায় মাটি ফেলা হচ্ছে।

এ সময় কিশোর চালকের ফটো ক্যামেরা বন্দিকরার সময় সে তড়িঘড়ি করে চালকের আসন থেকে কিশোর চালককে সরিয়ে নিজেই ট্রাক চালিয়ে কেটে পড়েন। সঙ্গত কারণে প্রশ্ন উঠতেই পারে  এসব দেখার দায়িত্ব কার ?

এইবেলাডটকম/দীপক/এফএআর

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
Migration
 
আরও খবর

 
 
 

News Room: news@eibela.com, info.eibela@gmail.com, Editor: editor@eibela.com

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

Copyright © 2017 Eibela.Com
Developed by: coder71