শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০
শুক্রবার, ১৩ই অগ্রহায়ণ ১৪২৭
সর্বশেষ
 
 
ধর্ম অবমাননার অভিযোগ
৯ দিন ধরে নিখোঁজ তিথি সরকার
প্রকাশ: ১০:৫১ pm ০৩-১১-২০২০ হালনাগাদ: ১০:৫১ pm ০৩-১১-২০২০
 
এইবেলা ডেস্ক
 
 
 
 


রাজধানীর পল্লবীর বাসা থেকে বের হয়ে নিখোঁজ জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সদ্য বহিষ্কৃত শিক্ষার্থী তিথি সরকারের খোঁজ ৯ দিনেও মেলেনি। এতে পরিবারটির সদস্যরা চরম উৎকণ্ঠায় পড়েছে। তারা দ্রুত তিথিকে খুঁজে বের করার দাবি জানিয়েছে।

তিথির পরিবার বলছে, গত ২৫ অক্টোবর থানার উদ্দেশে বাসা থেকে বের হন তিথি। এর পর থেকে নিখোঁজ। একই সঙ্গে পরিবারটির দাবি, ‘ধর্ম অবমাননার মিথ্যা অভিযোগে’ তিথিকে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ বহিষ্কার করেছে। তিথির ফেসবুক আইডি হ্যাক হয়েছিল।

পুলিশ বলছে, তিথির সন্ধানে সারা দেশে তৎপর আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা। এ ব্যাপারে পুলিশ সদর দপ্তর থেকে এসপিদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। দেশের সব থানায় তিথির ছবি পাঠানো হয়েছে। থানা-পুলিশের পাশাপাশি বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থাও গুরুত্ব দিয়ে তিথির সন্ধান করছে।

তিথির বড় বোন স্মৃতি সরকার সোমবার গনমাধ্যমকে বলেন, ‘তিথির ফেসবুক আইডি হ্যাক করে অপপ্রচার চালানো হয়। এ নিয়ে ২৩ অক্টোবর পল্লবী থানায় জিডি করেছিল ও। এই মিথ্যা অপপ্রচারকে সত্য ধরে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ ২৬ অক্টোবর তাকে বহিষ্কার করে।’

তিনি আরো বলেন, ‘এরপর থানা থেকে ফোন করে তিথিকে দেখা করতে বলা হয়। বাসা থেকে থানার উদ্দেশে বের হয়ে আমার বোন নিখোঁজ রয়েছে। তাকে অপহরণ করা হয়েছে, না কেউ পরিকল্পিতভাবে ধরে নিয়ে আটকে রেখেছে—কিছুই জানতে পারছি না।’

স্মৃতি সরকার বলেন, ‘আমার বাবা আগে থেকেই অসুস্থ, হাসপাতালে ভর্তি আছেন। তিথির ঘটনায় তিনি আরও অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। এছাড়া আমরা সবাই দুশ্চিন্তার মধ্যে পড়েছি। আমরা দ্রুত তার সন্ধান চাই।’

পল্লবী থানার ওসি কাজী ওয়াজেদ আলী বলেন, ‘তিথির নিখোঁজ হওয়া নিয়ে থানায় জিডি করা হয়েছে। তাঁর সন্ধান এখনো মেলেনি। চেষ্টা চলছে।’

এদিকে তিথিকে নিয়ে এখনো ফেসবুকে নানা গুজব ছড়ানো হচ্ছে। গত শনিবার সিআইডির সাইবার পেজে দেওয়া এক স্ট্যাটাসে বলা হয়, ‘মালিবাগ সিআইডি অফিসের চারতলা থেকে তিথি নামে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থীকে হাত-পা বাঁধা অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে।’ সোশ্যাল মিডিয়ায় এমন মিথ্যা ও বানোয়াট পোস্ট দেখা যাচ্ছে। এই রটনাকারীদের ব্যাপারে কোনো তথ্য-প্রমাণ থাকলে তা ০১৭৩০৩৩৬৪৩১ নম্বরে অথবা ফেসবুক পেজ (https://facebook.com/cpccidbdpolice)-এ জানাতে অনুরোধ করা হয়েছে। 

উল্লেখ্য, গত কয়েকদিন আগে তিথি সরকারের বিভিন্ন মন্তব্য ও ফেসবুক পোস্টের স্ক্রিনশট ভাইরাল হলে তা থেকে তীব্র সমালোচনার শুরু হয়। এক পর্যায়ে জবি শিক্ষার্থীরা তার স্থায়ী বহিষ্কার করার জন্য ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ করেন। প্রাণীবিদ্যা বিভাগের এই ছাত্রী সাধারণ ছাত্র অধিকার পরিষদ, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শাখার দপ্তর সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন। এ অভিযোগ আসার পর ওই সংগঠন থেকেও তাকে সাময়িক অব্যাহতি দেয়া হয়েছে।

নি এম/

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 

 

E-mail: info.eibela@gmail.com

a concern of Eibela Ltd.

Request Mobile Site

Copyright © 2020 Eibela.Com
Developed by: coder71