মঙ্গলবার, ১৭ জানুয়ারি ২০১৭
মঙ্গলবার, ৪ঠা মাঘ ১৪২৩
সর্বশেষ
 
 
নাসিরনগরের ঘটনা বিচ্ছিন্ন, আমাদের দেশেও এমনটি হয় : ত্রিপুরার ডেপুটি স্পিকার
প্রকাশ: ০৮:২৬ am ০৫-১২-২০১৬ হালনাগাদ: ০৮:২৬ am ০৫-১২-২০১৬
 
 
 


ব্রাহ্মণবাড়িয়া ::  ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের ডেপুটি স্পিকার পবিত্র কর বলেছেন,  ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নাসিরনগরে সম্প্রতি হিন্দু সম্প্রদায়ের ওপর যে হামলা হয়েছে সেটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা। ত্রিপুরা রাজ্যবাসী এটাকে বিচ্ছিন্ন ঘটনা হিসেবেই দেখছে। এমন বিচ্ছিন্ন ঘটনা আমাদের দেশেও (ভারত) ঘটছে। 

রবিবার সকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাব মিলনায়তনে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় তিনি এসব কথা বলেন। তিনি আরো বলেন, নাসিরনগরে গিয়ে জানতে পেরেছি দত্ত বাড়ি রক্ষা করতে গিয়ে মুসলিম সম্প্রদায়ের ভাইয়েরা মার খেয়েছেন। এখানে কোনো ভেজাল নেই। তবে বাড়ি-ঘর ভাঙচুর করেছে তাতে কোনো দুঃখ না থাকলেও মন্দিরগুলো না ভাঙলে আমরা খুশি হতাম। নাসিরনগরের হামলার ঘটনা বাংলাদেশের কোনো দলই সমর্থন করেনি। এ ঘটনার প্রতিবাদ হয়েছে। ঘটনার পর প্রশাসনসহ বিভিন্ন দলের লোকজন ক্ষতিগ্রস্তদের কাছে গিয়েছেন। তাদের বসবাসের মতো পরিস্থিতি নাসিরনগরে আছে। 

বাংলাদেশের উন্নয়ন-অগ্রযাত্রার কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশকে যেভাবে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন সেটি একটি দৃষ্টান্ত। কৃষি ক্ষেত্রে বাংলাদেশের যে উন্নয়ন, সে উন্নয়নে বাংলাদেশ আমাদের অনুকরণীয়। এই সাফল্যই বাংলাদেশের দারিদ্র্যতা দূরীকরণের অন্যতম একটি পথ। বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের বন্ধুত্বের সম্পর্ক টেনে তিনি আরও বলেন, বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক শুধু বন্ধুত্বপূর্ণ নয়, এটি আত্মীয়তার সম্পর্ক। এই সম্পর্ক আরও সুদৃঢ় হবে। আমাদের দু’দেশের মধ্যে আদান-প্রদান আরও বাড়াতে হবে। সাংবাদিকদের  প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, বাংলাদেশে যেহেতু ঢালু তাই ত্রিপুরা থেকে কালো পানি আসবেই। তবে আখাউড়ার কালন্দী খাল দিয়ে যে দূষিত কালো পানি আসে সেটি যেন পরিশোধন করে ছাড়া হয় সেজন্য একটি প্লান্ট স্থাপনের প্রকল্প গ্রহণ করা হচ্ছে।

প্রেসক্লাবে মিলনায়তনে প্রেস ক্লাবের সভাপতি খ. আ. ম রশিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভার মিসেস নায়ার কবির, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আল মামুন সরকার, সাবেক প্রেসক্লাব সভাপতি মোহাম্মদ আরজু, সাধারণ সম্পাদক দীপক চৌধুরী বাপ্পী প্রমুখ। মতবিনিময় সভায় জেলায় কর্মরত বিভিন্ন প্রিন্ট, ইলেক্ট্রনিক ও অনলাইন গণমাধ্যমের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

 

এইবেলাডটকম/প্রচ

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
 
 
 
 
আরও খবর

 
 
 

News Room: news@eibela.com, info.eibela@gmail.com, Editor: editor@eibela.com

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

Copyright © 2017 Eibela.Com
Developed by: coder71