শুক্রবার, ২৪ নভেম্বর ২০১৭
শুক্রবার, ১০ই অগ্রহায়ণ ১৪২৪
 
 
 সাঁওতাল পল্লীতে হামলার আসামি শাহ আলমকে ছিনিয়ে নিতে হামলা
প্রকাশ: ০৯:১০ am ০৯-১০-২০১৭ হালনাগাদ: ০৯:১০ am ০৯-১০-২০১৭
 
গাইবান্ধা প্রতিনিধি
 
 
 
 


গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জে সাঁওতাল পল্লীতে হামলা মামলার আসামি এক ইউপি সদস্যকে গ্রেপ্তারের পর তাকে ছিনিয়ে নিতে হামলায় চার পুলিশ আহত হয়েছে।

রবিবার রাত ১০টার দিকে গোবিন্দগঞ্জের সাহেবগঞ্জ বাজার এলাকা থেকে শাহ আলমকে গ্রেপ্তার করা হয় বলে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের  (পিবিআই) গাইবান্ধার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আনোয়ার হোসেন মিয়া জানান।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, পিবিআইয়ের একটি দল শাহ আলমকে গ্রেপ্তারের পর অনুসারীরা তাকে ছিনিয়ে নিতে পুলিশের উপর হামলা চালায়। তাদের হামলায় পিবিআইয়ের চার পুলিশ সদস্য আহত হন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে গুলি ছোঁড়ে পুলিশ।

আহত পুলিশ সদস্যরা হলেন- এসআই মোজাম্মেল হক, এসআই প্রভাত, এএসআই শাহ জালাল ও কনস্টেবল বজলু রহমান। সংঘর্ষের দিন সাঁওতালদের উপর গুলি ছুড়ছে পুলিশ, যা ম্যাজিস্ট্রেটদের নির্দেশে বলে ওসি জানিয়েছেন। (ফাইল ছবি) সংঘর্ষের দিন সাঁওতালদের উপর গুলি ছুড়ছে পুলিশ, যা ম্যাজিস্ট্রেটদের নির্দেশে বলে ওসি জানিয়েছেন। (ফাইল ছবি) আহতদের গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে এসএসআই শাহ জালালের অবস্থা গুরুতর।

পুলিশ কর্মকর্তা আনোয়ার জানান, ২০১৬ সালের  ৬ নভেম্বর গোবিন্দগঞ্জে সাঁওতাল পল্লীতে হামলায় জড়িত ছিলেন শাহ আলম। এছাড়া তিনি একজন ‘জ্বীনের বাদশার’ প্রতারক চক্রের সক্রিয় সদস্য। তার বিরুদ্ধে একাধিক প্রতারণার অভিযোগ রয়েছে।

সাহেবগঞ্জ-বাগদাফার্ম ইক্ষু খামারের জমি নিয়ে বিরোধ থেকে ওই সংঘর্ষে পুলিশের গুলিতে তিন সাঁওতাল নিহত হন। পুড়িয়ে দেওয়া হয় সাঁওতালদের ঘর-বাড়ি।

প্রচ

 
 
 
   
  Print  
 
 
 
 
Loading...
 
 
 
 
 
 
 
 
 
Loading...
 
আরও খবর

 
 
 
 
 

সম্পাদক: সুকৃতি কুমার মন্ডল

Editor: ‍Sukriti Kumar Mondal

সম্পাদকের সাথে যোগাযোগ করুন # sukritieibela@gmail.com

খবর প্রেরণ করুন # info.eibela@gmail.com

a concern of Eibela Foundation

Request Mobile Site

   বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ:

 E-mail: sukritieibela@gmail.com

  মোবাইল: +8801711 98 15 52 

            +8801517-29 00 01

 

 

Copyright © 2017 Eibela.Com
Developed by: coder71